Barisal-16বরিশাল: যথাযোগ্য মর্যাদায় ও শহীদদের প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা জানিয়ে নানা কর্মসূচির মধ্যদিয়ে মহান বিজয় দিবস উদযাপিত হচ্ছে।

সূর্যোদয়ের আগে পুলিশ লাইনে ৩১ বার তোপোধ্বনীর মধ্যদিয়ে অনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়। তবে প্রহরের প্রথম ভাগে রাত ১২টা ১ মিনিটে শহীদ স্মৃতিস্তম্ভে পুষ্পমাল্য অর্পণ করেন বিভিন্ন সংগঠন।

সূর্যোদয়ের পর প্রশাসনের পক্ষ থেকে বিভাগীয় কমিশনার, ডিআইজি, জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার, পুলিশ সুপার আরআরএফ, এপিবিএন, জোনাল সেটেলমেন্ট অফিস, গণপূর্ত বিভাগ শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করে কীর্তনখোলার পাড়ে বধ্যভূমি অভিমুখে পদযাত্রা করেন।Barisal-Victory-day-Photo-By-Hasibul-16.12.14 বিজয় দিবস উদযাপিত

সেখানে শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করেন বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ জেলা কমান্ড। বেলা বাড়ার পর পর্যায়ক্রমে আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি, কমিউনিস্ট পার্টি, জাসদ, ওয়ার্কার্স পার্টি, বরিশাল রিপোর্টার্স ইউনিটি, ন্যাপ, শিক্ষক সমিতি, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড, সাংস্কৃতিক সংগঠন সমন্বয় পরিষদসহ বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন শহীদ স্মৃতিস্তম্ভে পুষ্পমাল্য অর্পণ করেন।

সকাল ৯টায় বঙ্গবন্ধু উদ্যানে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন ও অভিবাদন গ্রহণ করেন বিভাগীয় কমিশনার মো. গাউস। এই অনুষ্ঠানের পাশাপাশি দিনভর আলোচনা সভা, চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে বিভিন্ন সংগঠন।

এছাড়াও সিটি করপোরেশনের মেয়রের উদ্যোগে বিকেলে কীর্তনখোলা নদীতে নৌকা বাইচের আয়োজন করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY