আধুনিক নার্সিং সেবার অগ্রদূত মহিয়সী নারী ফ্লোরেন্স নাইটিঙ্গেল-এর আদর্শে উজ্জীবিত হয়ে রোগীদের ইমপ্যাথি দিয়ে নিজ পরিবারের সদস্যদের মতো সেবা দেওয়ার আহবান জানিয়েছেন বঙ্গবন্ধুু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মোঃ শারফুদ্দিন আহমেদ। আজ ৯ অক্টোবর ২০২১ইং তারিখ, শনিবার, সকাল ৯ টায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের এ ব্লক অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত গ্রাজুয়েট নার্সিং বিভাগের ১০ম ব্যাচের ছাত্র-ছাত্রীদের ‘ক্যাপিং সেরিমনি’তে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ আহবান জানিয়ে আরো বলেন, নার্সদেরকে নিজেকে এমনভাবে তৈরি করতে হবে ও রোগীদেরকে সেবা প্রদান করতে হবে যাতে দেশের রোগীরা বাইরে না যায় এবং হাসপাতাল থেকে রোগীরা সুস্থ হয়ে সন্তুষ্টি নিয়ে বাড়ি ফিরে যান। মাননীয় উপাচার্য তাঁর বক্তব্যে নার্সিং পেশাকে দ্বিতীয় শ্রেণীর মর্যাদা প্রদানসহ নার্সিং পেশার উন্নয়নে গৃহীত বিভিন্ন কর্মকান্ড তুলে ধরে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে আরো বলেন, নার্সিং শিক্ষার উন্নয়নে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে আগামী সেশন থেকেই এমএসসি নার্সিং কোর্স চালু করা হবে।

নার্সিং অনুষদের সম্মানিত ডীন অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ হোসেন এর সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের সম্মানিত উপ-উপাচার্য (গবেষণা ও উন্নয়ন) অধ্যাপক ডা. মোঃ জাহিদ হোসেন, সম্মানিত উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ডা. একেএম মোশাররফ হোসেন, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ আতিকুর রহমান, প্রক্টর অধ্যাপক ডা. মোঃ হাবিবুর রহমান দুলাল, রেজিস্ট্রার অধ্যাপক ডা. এবিএম আব্দুল হান্নান, পরিচালক (হাসপাতাল) ব্রিগেঃ জেনারেল ডা. নজরুল ইসলাম খান। স্বাগত বক্তব্য রাখেন গ্রাজুয়েট নার্সিং বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক মেবেল ডি রোজারিও। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন সহযোগী অধ্যাপক মোঃ হারুন অর রশিদ গাজী। শপথ গ্রহণ পরিচালনা করেন গ্রাজুয়েট নার্সিং বিভাগের প্রভাষক নুপুর ডি কস্তা ।

অন্য বক্তারা বলেন, উন্নত, দক্ষ ও অনুসরণীয় নার্স হিসেবে গড়ে তুলতে বিশেষ করে বিশ্বমানের নার্স হিসেবে তৈরি হতে নিজেকে উৎসর্গ করতে হবে। সম্পাদনা: সহকারী অধ্যাপক ডা. এস এম ইয়ার ই মাহাবুব ও সুব্রত বিশ্বাস। ছবি: মোঃ সোহেল গাজী ও মোঃ আরিফ খান। নিউজ: প্রশান্ত মজুমদার।